Friday, July 19, 2024
spot_imgspot_imgspot_imgspot_img
HomePhotographyলন্ডনে টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিল নির্বাচনে লুৎফুরের প্রতি সমর্থন ঘোষনা করলেন বিশ্বখ্যাত সিভিল...

লন্ডনে টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিল নির্বাচনে লুৎফুরের প্রতি সমর্থন ঘোষনা করলেন বিশ্বখ্যাত সিভিল রাইটস মুভম্যান্ট নেতা

খালেদ মাসুদ রনি:
আগামী পাঁচ মে লন্ডন শহরের বাংলাদেশী অধ্যুষিত টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিল নির্বাচন অনুষ্টিত হতে যাচ্ছে।হাতে সময় রয়েছে মাত্র দুই সপ্তাহ।নির্বাচনকে ঘিরে বর্তমানে সরগরম এ বারা।চায়ের দোকান থেকে শুরু করে সব জায়গায় নির্বাচনী আলোচনা।এবারের নির্বাচনে ভোটারদের মন জয় করতে প্রার্থীরা রাতদিন ঘুরছেন ভোটারদের দুয়ারে।এবারের নির্বাচনে প্রার্থী হয়েছেন দুই বারের নির্বাচিত সাবেক মেয়র,বাংলাদেশী বংশোদ্ভূত লুৎফুর রহমান।তিনি নির্বাচনে প্রার্থীতা ঘোষনার পর অন্য প্রার্থীরা নড়ে চড়ে বসেন।এর মধ্যে লুৎফুর রহমাকে সমর্থন করেছেন লন্ডনের প্রথম মেয়র কেন লিভিংস্টোন।এছাড়াও লেবার দলের নেতা থেকে শুরু করে বিভিন্ন রাজনীতিক,সামাজিক সংগঠনের নেতারা।তাদের সাথে যোগ দিলেন বিশ্বখ্যাত সিভিল রাইটস মুভম্যান্ট নেতা, আমেরিকার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে সাবেক ডেমোক্র্যাট পার্টির নোমিনেশন প্রার্থী ও সাবেক শ্যাডো সিনেটর জেসি জেকসন। তিনি টাওয়ার হ্যামলেটস মেয়র নির্বাচনে লুৎফর রহমানের প্রতি সমর্থন ঘোষনা করেছেন।অফিশিয়ালি একটি বিবৃতির পাশাপাশি সাম্প্রতিক লন্ডন সফরকালে লুৎফরের সাথে তার বাসায় গিয়ে দেখা করেন এবং সামগ্রিক বাস্তবতা বিবেচনায় সহমর্মিতা জানান।

জেসি জেকসন বলেছেন, লন্ডনের একটি বারায় কিভাবে একজন নির্বাচিত মেয়র সামগ্রিক ভাবে উন্নতি আনতে পারেন, অনেকের মাঝে ব্যতিক্রম হতে পারেন-তা দেখে তিনি অভিভূত।এথনিক কমিউনিটি থেকে বৃটেনে প্রথম নির্বাচিত মেয়রের হওয়ার গৌরব অর্জন করা, তারপর বিশালসব চ্যালেঞ্জে পড়া এবং সেটা থেকে উঠে দাড়ানোর সংগ্রাম বিষয়ে অবগত আছেন বলে জানান তিনি।তিনি লুৎফরের যোগ্যতা ও সাহসিকতার প্রশংসা করেন।বিবৃতিতে চার্চের এই রেভারেন্ট বলেন, আমি নিজেই আনন্দিত হয়েছি লুৎফর রহমানের সাথে দেখা করে।আমি জানি মেয়র থাকাকালে স্থানীয় বারার সাধারন মানুষের জীবনমানের উন্নয়নে সক্রিয় ভৃমিকা রেখেছেন তিনি।তার কাজের রেকর্ড সম্পর্কে আমি অবগত।

প্রসঙ্গত:লন্ডনের প্রথম মেয়র কেন লিভিংস্টোন, টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলে সাবেক লেবার পার্টির ডিপুটি লিডার ব্যারোনেস পলা উদ্দিন, টাওয়ার হ্যামলেটসের সোস্যাল জাস্টিস নেতা ও অবসরপ্রাপ্ত টিচার জন আলিসন, টাওয়ার হ্যামলেটসের সোস্যাল একটিভিস্ট আনিটা সাবক, ব্ল্যাক কমিউনিটি নেতা নেসটা অডিগবো এবং সোমালী নেত্রি সাইদা ওমর আনুষ্ঠানিক সমর্থন দিয়েছেন।তারা প্রায় সকলেই লুতফুর রহমানের মিডিয়া লঞ্চিং-এ যোগ দিয়ে পরিবর্তনের পক্ষে তাদের স্ব স্ব যুক্তি তুলে ধরেন।ইতিমধ্যে কেন লিভিংস্টোন বলেছেন, ভোটের মাধ্যমে বর্তমান লেবার মেয়রকে পরিবর্তন করুন, আবারো ফিরিয়ে আনুন লুৎফুরকে।তিনি বলেন, বারার স্কুল গুলোতে ব্যর্থতা ছিলো তার বদলে লুৎফুর বিপুল উন্নতি এনেছিলেন। হাউজিংসহ নানা ক্ষেত্রে তার অবদান অসাধারণ।কেন আরো বলেন, আমি তাকে বিশ্বাস করি এবং সবার কাছে তার জন্য ভোট প্রার্থনা করছি।

এদিকে,টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের সাবেক লেবার ডিপুটি লিডার ব্যারোনেস পলা উদ্দিন বলেন, লুৎফুর রহমানকে সমর্থন করি একারনেই যে তিনি তরুন প্রজন্মের আশা আকাংখার প্রতিনিধিত্ব করেন। তিনি পরিবর্তনের ক্ষেত্রে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।আমি সত্যিকার অর্থে গর্বিত লুৎফুরের কমিটম্যান্ট দেখে,আমি বিশ্বাস করি তার মাধ্যমে এই বারার মানুষ বৈষম্যমুক্ত হবে।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -spot_img

Most Popular

Recent Comments